কুমিল্লা জমে উঠেছে দেহ ব্যবসা,অভিযানে ২ বস্তা কনডম ও ইয়াবাসহ আটক ১৩

কুমিল্লা জমে উঠেছে দেহ ব্যবসা,অভিযানে ২ বস্তা কনডম ও ইয়াবাসহ আটক ১৩

কুমিল্লা নগরীর একটি আবাসিক হোটেলে জেলা প্রশাসন ও র‌্যাব ১১ অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেলে কুমিল্লা শহরের শাসনগাছার হোটেল ঈশিতা এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইমদাদুল হক তালুকদার অভিযানের নেতৃত্ব দেন। উক্ত আবাসিক হোটেল থেকে ৩৫০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট ও ২ বস্তা কন্ডম উদ্ধার এবং মাদক সেবন, বিক্রয় ও অসামাজিক কাজে জড়িত থাকার অপরাধে ১৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বিস্তারিত জানা যায়, মঙ্গলবার বিকেলে কুমিল্লা শাসনগাছা এলাকায় ঈশিতা আবাসিক হোটেলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১ সিপিসি-২ এর ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার সহকারী পুলিশ সুপার প্রণব কুমার ও জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইমদাদুল হক তালুকদার এর নেতৃত্ব পরিচালিত হয় বিশেষ এ অভিযান। ঘটনাস্থল থেকে ১৩খদ্দের সহ আটক ১০পতিতাকে ২০০ টাকা করে জরিমানা করা হয়। এছাড়া আটক হোটেল ম্যানেজার মামুন (২৮) ও পলাতক আসামী হোটেল মালিক আঃ রহিম কে আসামী করে মাদক আইনে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানায় র‌্যাব। এসময় জব্দকৃত কন্ডম, লুব্রিকেন্ট সহ অন্যান্য আলামত ধ্বংস করা হয় এবং আবাসিক হোটেলটিকে সীলগালা করা হয়।

উল্লেখ্য এর আগে আলেখারচ এলাকায় একই মালিক অনৈতিক ব্যাবসায়ী ও মাদকের কারবারি আব্দুর রহিমের আবাসিক হোটেল তানিমে অভিযান চালিয়ে ইয়াবা, জেল, যৌন উত্তেজক ঔষধ, পতিতা ও খদ্দের সহ ম্যানেজার মামুন কে আটক করা হয়েছিলো।

জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জানান, ১৩ জনের প্রত্যেককে ৩ মাস করে বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান এবং এ ঘটনায় মালিক পলাতক রয়েছে। তবে ম্যনেজারের বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা দায়ের। এই ধরণের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

Source:: http://talashbangla.com/

 

See also  সৌদি আরবে নিয়ে দেহ ব্যবসা

আমাদের ফেসবুক গ্রুপে জয়েন করুন